সুপারিবাগান থেকে উদ্ধার হওয়া অজগর শেরপুরের গারো পাহাড়ে অবমুক্ত

শেরপুরের গারো পাহাড়ের গভীর বনে একটি অজগর সাপ অবমুক্ত করা হয়েছে। ১৩ জুলাই মঙ্গলবার বিকেলে শ্রীবরদী উপজেলার বালিজুড়ি রেঞ্জের গভীর বনে এ অজগর সাপটি অবমুক্ত করা হয়। নয় ফুট তিন ইঞ্চি দৈর্ঘ্যের ও আট কেজি ওজনের বার্মিজ এ অজগর সাপটি মধ্যবয়স্ক বলে জানিয়েছে বন বিভাগ।

জেলা বন বিভাগ সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার ভোরের দিকে জামালপুর জেলার মাদারগঞ্জের চাত্রাপাড়া খালে জাল দিয়ে মাছ ধরছিলেন এক ব্যক্তি। এসময় তার জালে অজগর সাপটি ধরা পড়ে। পরে স্থানীয় একজন ব্যক্তি জরুরি সহায়তা নম্বর ৯৯৯-এ ফোন করে বিষয়টি জানান। ৯৯৯ থেকে এ অঞ্চলের বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ বিভাগকে বিষয়টি জানানো হয়। সকালে বনবিভাগ সাপটিকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়। পরে বিকেলের দিকে শ্রীবরদী উপজেলার বালিজুরি রেঞ্জের গহীন বনে অজগর সাপটিকে অবমুক্ত করা হয়।

অবমুক্তকালে উপস্থিত ছিলেন-ে শেরপুর বন বিভাগের বন্যপ্রাণী রেঞ্জ কর্মকর্তা মো. আব্দুল্লাহ আল আমিন, বন্যপ্রাণী ও জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণ কর্মকর্তা সুমন সরকার, বালিজুরি রেঞ্জের রেঞ্জার রবিউল ইসলাম, বনপ্রহরী মো. আব্দুল মোতালেবসহ বন বিভাগের অন্যান্য কর্মকর্তা-কর্মচারীবৃন্দ।

শেরপুর বন বিভাগের বন্যপ্রাণী রেঞ্জ কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, সাপটি বন্যার পানিতে মাছ শিকার করতে খালে গিয়ে জেলেদের জালে ধরা পড়ে। পরে খবর পেয়ে সাপটিকে উদ্ধার করে গহীন বনে ছেড়ে দেওয়া হয়। অজগরের বসবাসের উপযুক্ত স্থানেই তাকে অবমুক্ত করা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, সাপটি ‘বার্মিজ পাইথন’ জাতের অজগর। এ অঞ্চলের গারো পাহাড়ের শালবনে এ ধরনের অজগরের বিচরণ রয়েছে।

Top
ঘোষনাঃ