প্রধানমন্ত্রীকে গারো পাহাড়ে দাওয়াত দিলেন স্বামী পরিত্যক্তা তাছলিমা

স্টাফ রিপোর্টার:
মুজিববর্ষ উপলক্ষে উপহারের ঘর পেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে শেরপুরের গারো পাহাড়ের হলদিগ্রাম ঘুরে আসার দাওয়াত দিয়েছেন এক উপকারভোগী। রোববার ঘর ও জমি বুঝে পাওয়ার পর হলদিগ্রামের বাসিন্দা বিধবা তাছলিমা প্রধানমন্ত্রীকে এ দাওয়াত দেন।

এর আগে মুজিববর্ষ উপলক্ষে সকালে ভূমি ও গৃহহীন পরিবারের হাতে ঘরের চাবি তুলে দেয়া কার্যক্রমের দ্বিতীয় দফার উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী। শেরপুরের ঝিনাইগাতীর গারো পাহাড়ের হলদিগ্রামে এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে অনলাইনে যুক্ত হন প্রধানমন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে তাছলিমা বলেন, ‘স্বামীর ঘর থেকে ফিরে আসার পর, আমার বাবার বাড়িতে অনেক কষ্টে আছিলাম। আমার জমি, ঘর কিছুই ছিল না। আপনি আমাকে ঘর ও জমি দিয়েছেন। এ জমি ও ঘর পেয়ে আমি খুবই খুশি।

‘আমি সুখ ও শান্তি পেয়েছি। আমি দোয়া করি আপনি সুখে থাকেন, দীর্ঘজীবী হন। আর আপনার প্রতি অনুরোধ, আপনি আমাগো হলদিগ্রামের গুচ্ছগ্রামে এসে আমাগো দেখে যাবেন।’

জবাবে প্রধানমন্ত্রী হেসে বলেন, ‘আমি সুযোগ পেলে অবশ্যই আসার চেষ্টা করব।’

এ সময় শেরপুর প্রান্তে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় সংসদের হুইপ বীরমুক্তিযোদ্ধা মো: আতিউর রহমান আতিক, ময়মনসিংহ বিভাগের কমিশনার মোঃ শফিকুর রেজা বিশ্বাস, ময়মনসিংহ রেঞ্জ ডিআইজি ব্যারিস্টার মোঃ হারুন অর রশিদ বিপিএম, শেরপুরের জেলা প্রশাসক আনার কলি মাহবুব, পুলিশ সুপার হাসান নাহিদ চৌধুরী, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট চন্দন কুমার পাল, উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব এআরএস নাঈম ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রুবেল মাহমুদ প্রমুখ।

Top
ঘোষনাঃ